বিদেশ ভ্রমন পরিকল্পনা যেভাবে সাজাবেন – শামীম হাসান এর ব্লগ

বন্ধুরা, আজ আলোচনা করবো আপনি কিভাবে বিদেশে ভ্রমন পরিকল্পনা সাজাবেন। অনেকেই ইদানীং বিদেশ ভ্রমন করতে যায়। দিন দিন এ প্রবনতা বাড়ছে। তবে সঠিক পরিকল্পনা না থাকলে আপনাকে বিড়ম্বনায় পড়তে হবে এটি নিশ্চিত। তাই আজ আপনাদেরকে জানাবো কিভাবে আপনি বিদেশে ভ্রমনের আগে আপনার ভ্রমন পরিকল্পনা সাজাবেন।

বিদেশে ভ্রমন করার জন্য আপনার যে সকল বিষয়ের উপর খেয়াল রাখতে হবেঃ

বিদেশ ভ্রমন এর জন্য কাঙ্খিত দেশ রিসার্চঃ

আপনি যে দেশে যাবেন সে দেশের উপর আপনার সাম্যক ধারনা থাকলে আপনার ভ্রমন ভালো হবে। আপনি যে দেশে যাচ্ছেন সে দেশের সম্পর্কে যে যে তথ্য আপনার জানা থাকলে ভালো তা হলোঃ
১। ঐ দেশের আয়তন ও জনসংখ্যা।
২। মুদ্রার নাম ও মুদ্রার হার।
৩। রাজধানীর নাম, প্রধান প্রধান দর্শনীয় স্থান ও বিখ্যাত কিছু যায়গার নাম।
৪। যোগাযোগ ব্যাবস্থা কেমন তা জানতে হবে বিশেষ করে উবার বা অন্য কোন ট্যাক্সি সার্ভিস আছে কিনা তা চেক করতে হবে।
৫। প্রধান ধর্মসমূহ কি কি তা জানতে হবে ও তাদের প্রধান ভাষা কি তা জানতে হবে।
৬। প্রয়োজনভেদে আরো কিছু গুরুত্বপূর্ন তথ্য আপনার হাতে নাগালে রাখতে হবে। যেমনঃ তাদের ইন্টারন্যাশনাল এয়ারপোর্ট এর নাম, জীবনযাত্রার মান ইত্যাদী।
৭। ঐ দেশের আবহাওয়া সম্পর্কে আপনার অবশ্যই ধারনা থাকতে হবে। এটি খুবই গুরুত্বপূর্ন।

আপনি গুগুল সার্চ করলেই সকল তথ্য পেয়ে যাবেন। তাছাড়া আপনি tripadvisor.com, booking.com, agoda.com & Airbnb.com থেকে খরচ সংক্রান্ত সকল তথ্য পেয়ে যাবেন। সকল তথ্য সংগ্রহ করে আপনি নোট আকারে রেখে দিবেন আপনার কাছে।

আপনি নোট করার জন্য এই ভিডিওটি দেখতে পারেন। https://www.youtube.com/watch?v=v4TstWkP-Co

বিদেশ ভ্রমন

লোকাল আইল্যান্ড, মালদ্বীপ

পর্যাপ্ত অর্থঃ

টাকা ছাড়া ভ্রমন করা অকল্পনীয় ব্যাপার। আপনাকে আগে পরিমিত টাকা সংগ্রহে রাখতে হবে। আপনি যে দেশে যাবেন সে দেশে কেমন খরচপাতি হয় তা দেখে আপনি আপনার ভ্রমন পরিকল্পনা অনুযায়ী নির্দিষ্ট পরিমান অর্থ সাথে রাখবেন। ডলার এনডোর্স করাতে ভুলবেন না যেনো। আর যদি কার্ড সাথে থাকে তবে কত খরচ লাগবে তাও হিসেব করে পর্যাপ্ত পরিমান অর্থ সাথে রাখবেন।

গুগল ম্যাপের ব্যবহারঃ

বিদেশ ভ্রমনকালে যেহেতু আপনি রাস্তাঘাট কিছুই চিনেন না, তাই আপনাকে আপনার লোকেশন ট্রাক করার জন্য গুগুল ম্যাপ ব্যবহার করতে হবে। লোকেশন ছাড়াও গুগুল ম্যাপ হতে পারে আপনার ভ্রমন সঙ্গী। আপনি গুগল ম্যাপ আ্যাপের মাধ্যমে সহজেই নিকটস্থ রেষ্টুরেন্ট, মার্কেট, হসপিটাল ও যেকোন প্রয়োজনীয় যায়গা খুজে বের করতে পারেন।

অনলাইন বুকিং এর ব্যবহারঃ

আপনি বিদেশ ভ্রমনকালে আপনাকে অবশ্যই অনলাইন বুকিংয়ে অভ্যস্ত থাকতে হবে। কারন যে কোন সময় যে কোন যায়গা থেকে আপনার হোটেল, টিকিট কিংবা যেকোন কিছু বুকিং করা লাগতে পারে। তাই আপনি আগে থেকেই এ ব্যাপারটি শিখে ও বুঝে রাখবেন।

প্রয়োজনীয় সরঞ্জামাদীঃ

বিদেশ ভ্রমন করার ক্ষেত্রে আমি যে সমস্যায় সবচেয়ে বেশি পড়েছি এ পর্যন্ত তা হলো মোবাইল এর চার্জ নিয়ে সমস্যা ও হোটেলের চার্জার পোর্ট এর অমিল হওয়া। তাই আপনি অবশ্যই একটি পাওয়ার ব্যাংক সাথে রাখবেন জরুরীভিক্তিতে আপনার মোবাইল চার্জ দেওয়ার জন্য ও একটি ৩ পিন টু টুপিন কনভার্টার অবশ্যই সাথে রাখবেন।

তাছাড়াও আপনার যে সকল সরঞ্জাম সাথে রাখতে হবে বিড়ম্বনা এড়ানোর জন্য। তা হলোঃ
* মোবাইল, ল্যাপটপ ও সমস্ত ইলেক্ট্রিক ডিভাইসের চার্জার ও মেমোরী কার্ড রিডার, পেনড্রাইভ – যদি প্রয়োজনীয় হয়ে থাকে।
* ব্রাশ, টুথপেষ্ট, গামছা, শেভিং রেজার ও শেভিং ক্রিম
* সমুদ্রের কাছাকাছি ভ্রমনের ক্ষেত্রে শর্টপ্যন্ট ও পানিতে পরিধানযোগ্য কাপরচোপড়
* আপনার ডিএসএলআর ক্যামেরার ব্যাটারি, মেমোরীকার্ড ও একশন ক্যামেরার সমন্ত প্রয়োজনীয় কভার ও মেমোরীকার্ড
* হেডফোন, চশমা, ঘড়ি, পারফিউম, প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে স্যান্ডেল জুতা, গেঞ্জি
* পাওয়ার ব্যাংক, থ্রিপিন টু টুপিন কনভার্টার
* প্রয়োজনীয় কাপড় চোপড়, অন্তত ২ সেট।

তাছাড়াও আপনার প্রয়োজনমতো আপনি জিনিসপত্র নিতে পারেন।

 

থাইল্যান্ড ভ্রমনের পরিকল্পনা নিয়ে একটি ভিডিও বানিয়েছিলাম আপনাদের জন্যঃ

বিদেশ ভ্রমন পরিকল্পনা যেভাবে সাজাবেন – শামীম হাসান এর ব্লগ
4.6 (91.43%) 7 votes